Oops! It appears that you have disabled your Javascript. In order for you to see this page as it is meant to appear, we ask that you please re-enable your Javascript!

| |

ব্রেকিং নিউজঃ

বেতন-বোনাসের দাবিতে ময়মনসিংহ-কিশোরগঞ্জ মহাড়সক অবরোধ ॥ রাস্তায় দীর্ঘ যানজট

আপডেটঃ 12:00 am | August 11, 2019

প্রধান প্রতিবেদক :
বেতন- বোনাসের দাবিতে শনিবার (১০ আগস্ট/১৯) ময়মনসিংহ-কিশোরগঞ্জ মহাসড়কের গৌরীপুর উপজেলার গাজীপুরে অবরোধ করে ঢাকা টেক্সটাইল মিল লিমিটেডের শ্রমিকরা।

রাস্তায় কলাগাছ ফেলে যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেয় বিক্ষুব্ধ শ্রমিক। ফলে রাস্তার দু’দিকে দীর্ঘ যানজটের সৃষ্টি হয়। গৌরীপুর থানার অফিসার ইনচার্জ কামরুল ইসলাম মিয়া ও অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) গোলাম মাওলা বিক্ষুব্দ শ্রমিকদের সঙ্গে কথা বললে অবরোধ প্রত্যাহার করে নেয়।

জুলাই মাসের বেতন ও ঈদ বোনাস না দিয়েই প্রাইড গ্রুপের প্রতিষ্ঠান ঢাকা টেক্সটাইল মিল লিমিটেড শনিবার ১২টার দিকে প্রধান গেইট লাগিয়ে দেয়। এতে আন্দোলনরত বিক্ষুব্দ শ্রমিকরা ক্ষোভ ময়মনসিংহ-কিশোরগঞ্জ মহাসড়কের গাজীপুর এলাকায় রাস্তায় কলাগাছ, বেঞ্চ, কাঠের টুকরা ফেলে অবরোধ সৃষ্টি করে। বেতন-বোনাসের দাবিতে বিক্ষুব্দ শ্রমিকরা শ্রমিক করে। বিক্ষুব্দ শ্রমিক মো. সেলিম হাসান জানান, আমরা ভিতরেই আন্দোলন করছিলাম মিল কর্তৃপক্ষই গেইটে তালা লাগিয়ে দেয়ায় রাজপথে আসতে হয়েছে। অপর শ্রমিক আব্দুল জলিল জানান, এ মিলে কোন মাসেই নির্ধারিত দিনে বেতন-ভাতা দেয়া হয়নি। প্রতি মাসের ২০তারিখের পর কখনও কখনও ২৭/২৮তারিখেও বেতন দেয়। বিক্ষুব্দ শ্রমিকদের অভিযোগের সত্যতা স্বীকার করেন মিলসের ব্যবস্থাপক নুরুল ইসলাম রনি। তিনি জানান, টাকা সংগ্রহ না হওয়ায় ও উধ্বর্তন কর্তৃপক্ষ মিলে না থাকায় বোনাস দেয়া সম্ভব হয়নি। আর বেতন তো সবসময়ই ২৭/২৮তারিখে দেয়া হয়। তাই বেতন দেয়াও সম্ভব হচ্ছে না।

অপরদিকে মিলে ৪/৫শ শ্রমিক কর্মরত থাকলেও তাদের জন্য সুপিয় পানি ও বার্থরুমের কোন ব্যবস্থা নেই। শিল্পকারখানার নিয়মানুযায়ী বর্জ্য ব্যবস্থাপনা নেই বলে অভিযোগ করেন গাজীপুরের আব্দুর রশিদ। তিনি জানান, কিছুদিন আগে এ মিলের পানিতে এ অঞ্চলের অর্ধশত পুকুরের মাছ মরেছে, দুর্গন্ধে গ্রামবাসী দুবির্ষহ জীবনযাপন করতে হচ্ছে।

ঢাকা টেক্সটাইল মিল লিমিটেডের ব্যবস্থাপক (প্রশাসন) মো. সেলিম হাসান চৌধুরী জানান, মিলের শ্রমিকরা যে দাবি দাওয়া করেছিলো তাদের দাবিপূরণ করা হচ্ছে। গৌরীপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) কামরুল ইসলাম মিয়া বলেন, শ্রমিকদের সঙ্গে কথা বলে যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক করা হয়েছে। মিল ও শ্রমিকদের সঙ্গে কথা বলে দাবী নিষ্পত্তির উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

টি.কে ওয়েভ-ইন

Print Friendly, PDF & Email