Oops! It appears that you have disabled your Javascript. In order for you to see this page as it is meant to appear, we ask that you please re-enable your Javascript!

| |

তরকারিতে বেশি লবণ? কী করবেন-

January 20, 2019

বাহাদুর ডেক্স: তরকারিতে হঠাৎ করে বেশি লবণ পড়ে যেতে পারে। এতে কী তরকারি নষ্ট হয়ে গেল? নাহ, তা হয়। আপনি চাইলেই এই বাড়তি লবণ সরিয়ে ফেলতে পারবেন। এজন্য জানতে হবে কিছু কৌশল। দেখে নিন তরকারিতে বেশি লবণ পড়ে গেলে কী করবেন- সবজির তরকারি হলে আরও কিছু সবজি মিশিয়ে নিন। তরকারির বাড়তি লবণ কমে যাবে। স্যুপ অথবা লিকুইড খাবার হলে পরিমাণ বাড়িয়ে দিন। ঝোলের তরকারি হলে ২টি টমেটো ৪ টুকরা করে কেটে দিয়ে দিন। লবণ কমে যাবে। আটা পানিতে গুলে খামির তৈরি করুন। খানিকটা নরম হলেও সমস্যা নেই। গোল গোল করে খামির দিয়ে দিন তরকারির মাঝে মাঝে। এটি দেওয়ার পর শক্ত হয়ে যাবে ও তরকারির অতিরিক্ত লবণ টেনে নেবে। রান্না শেষে ফেলে দিন খামির। আলু ছোট ছোট টুকরা করে দিয়ে দিন তরকারিতে। আলু সেদ্ধ হতে হতে টেনে নেবে লবণ। চাইলে রান্না শেষ হওয়ার পর আলু উঠিয়ে ফেলতে পারেন। ১ চা চামচ লেবুর রস দিয়ে দিন তরকারিতে।...

হৃদরোগজনিত জটিলতা কমায় চীনাবাদাম

January 17, 2019

বাহাদুর ডেস্ক : পার্কে বসে, ভ্রমনের সময়, হাঁটতে হাঁটতে কিংবা গল্প করার ফাঁকে চীনাবাদাম খেতে অনেকেই পছন্দ করেন। খোসাসহ ভাজা, খোসা ছাড়া ভাজা, লবণ দেয়া কিংবা কাঁচা নানা ভাবেই এটি খাওয়া যায়। মাটির নীচে হয় বলে এটাকে চীনাবাদাম বলা হয়্ । এছাড়া বিভিন্ন ভাষায় এর ভিন্ন ভিন্ন নাম আছে। চীনাবাদাম বিভিন্ন খাবার তৈরিতেও ব্যবহৃত হয়। চীনাবাদামে নানা ধরনের পুষ্টি গুণ রয়েছে। এটি প্রোটিন, ম্যাঙ্গানিজ, নিয়াসিন, ফলিক অ্যাসিড, ভিটামিন ই, থায়ামিন, ফসফরাস, বায়োটিন এবং ম্যাগনেশিয়ামের ভাল উৎস। চীনাবাদাম প্রচুর পরিমাণে মোনোস্যাচুরেটেড এবং বিভিন্ন ধরনের ফ্যাট রয়েছে যা রক্তে কোলেস্টেরলের মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে। নিয়মিত এই বাদাম খেলে হৃদরোগজনিত জটিলতা কমে। চীনাবাদামে প্রচুর পরিমাণে বেটা সিটোস্ট্রেরল উপাদান রয়েছে যা ক্যান্সার প্রতিরোধে ভূমিকা রাখে। বিভিন্ন গবেষণায় দেখা...

ষাটের দশক থেকে পত্রিকা সংগ্রহ শুরু ॥ পত্রিকাপ্রেমী মোসলেমের দুঃখগাঁথা

January 11, 2019

গৌরীপুর (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি: ছোট একটা উঠান। বিছানো আছে পলিথিন। রাখা আছে শতশত পুরানো পত্রিকা। তার ওপরে জমেছে ধুলা-বালির প্রলেপ। সূর্যের আলোর তাপে পত্রিকা থেকে বেরিয়ে আসছে ছোট পোকা-মাকড়। আর এক বৃদ্ধ লোক তা পরিষ্কার করছেন খুব যতœ করে। গত বুধবার বিকালে এই দৃশ্য ধরা পড়ে গৌরীপুর উপজেলার বেকারকান্দা গ্রামে। ওই বৃদ্ধর নাম মোসলেহ উদ্দিন মোসলেম (৭২)। বাবা মৃত রহিম উদ্দিন। মা মৃত আমেনা খাতুন। চার ভাই তিন বোনের মধ্যে তিনি সবার ছোট। পেশায় শিক্ষক হলেও গ্রামবাসী তাকে চেনে একজন পত্রিকাপ্রেমী হিসাবে। কাছে গিয়ে পরিচয় দিলে এ প্রতিনিধির সাথে গল্প জুড়ে দেয় মোসলেম। তিনি বলেন, অভাবী পরিবারের ছেলে হলেও আমার পত্রিকা পড়ার খুব নেশা ছিলো। আমার সংগ্রহশালায় আছে-১৯৫৬ সালে পাকিস্তানে সংসদে দেওয়া হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দীর ভাষণ, শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ মার্চের ঐতিহাসিক ভাষণ, ১৯৬৫ সালের...

যত্রতত্র কান পরিষ্কার নয়

January 07, 2019

বাহাদুর ডেস্ক : কান দিয়ে অনেকেরই পানি, পুঁজ পড়ে কিংবা কান পাকা রোগ হয়ে থাকে। কানে তুলনামূলক কম শোনা, মাথা ঘোরানো, কানে শোঁ শোঁ শব্দ করা এ রোগের উপসর্গ। এতে পোহাতে হয় নানা রকম দুর্ভোগ। বাংলাদেশের মতো অন্য উন্নয়নশীল দেশগুলোতে এই রোগ বেশি লক্ষ্য করা যায়। দারিদ্র্য, অপুষ্টি, স্বাস্থ্য সচেতনতা, স্বাস্থ্যশিক্ষার অভাবসহ বিভিন্ন কারণকে এ জন্য দায়ী করা হয়। এই রোগে যে কোনো বয়সের নারী-পুরুষ আক্রান্ত হতে পারে। তবে শহরবাসীর তুলনায় গ্রামের মানুষের এই রোগ বেশি হয়। কান পাকা রোগটি মূলত দু'ধরনের। একটি হলো সেফ টাইপ বা টিউবোটিমপেনিক টাইপ। সাধারণত এটাতে তেমন কোনো জটিলতা দেখা যায় না। অপর ধরনটি আনসেফ টাইপ বা এটিকোএন্ট্রাল টাইপ। এ ধরনের কান পাকা রোগ থেকে মারাত্মক জটিলতা সৃষ্টি হতে পারে। যেমন- ব্রেইনঅ্যাবসেস, মেনিনজাইটিস, অ্যানসেফালাইটিস, ফেসিয়াল প্যারালাইসিস ইত্যাদি। অযথা...

নেতিবাচক চিন্তা দূর করবেন যেভাবে

December 25, 2018

বাহাদুর ডেস্ক মনের অভ্যাসই হচ্ছে নেতিবাচক চিন্তা করা। যতক্ষন না আপনি মন থেকে সেটা দূর করতে পারবেন ততই নেতিবাচক চিন্তাগুলো ডালপালা মেলতে শুরু করবে। এ কারণে নেতিবাচক চিন্তা মাথায় আসতে শুরু করলে জোর করে হলেও সেটা তাড়ানোর চেষ্টা করতে হবে। আপনি যদি দৃঢ় ভাবে নেতিবাচক ভাবনা দূর করার চেষ্টা করেন তাহলে এটা দ্রুত তাড়ানো সম্ভব। কখনও কখনও নেতিবাচক চিন্তা দূর করা খুব সহজ কাজ নয়।একাধিক উপায়ে এটা দূর করার চেষ্টা করতে পারেন। যেমন- ১. নিজেকে লক্ষ্য করুন। আপনি কি ভ্রু কুচকে গভীর মনোযোগ দিয়ে ভাবছেন? এটা একটা নেতিবাচক ভঙ্গী। এ ধরনের শারীরিক অঙ্গভঙ্গী আপনার নেতিবাচক প্রতিচ্ছবি প্রকাশ করে। সেই সঙ্গে আত্মবিশ্বাসের ঘাটতিও ফুটে ওঠে। সোজা হয়ে বসুন। আপনার বসার ভঙ্গীতেই আপনার ইতিবাচক মানসিকতা প্রকাশ করবে। ২. মাঝেমধ্যে নেতিবাচক চিন্তা আসে মনের ভেতরে জমা আবেগ থেকে। এ...

ডাল কেন খাবেন?

November 17, 2018

স্বাস্থ্য ডেস্ক প্রোটিনের দারুন উৎস হচ্ছে ডাল। এটা এমন একটি উদ্ভিজ্জ প্রোটিন যা সবার জন্যই উপকারী। এছাড়া এতে নানা ধরনের পুষ্টি উপাদান থাকায় নিয়মিত ডাল খাওয়ার পরামর্শ দেন বিশেষজ্ঞরা।প্রায় সব ধরনের ডালেই বিভিন্ন ধরনের পুষ্টি গুণ রয়েছে।যেমন- মসুর ডাল : আমাদের দেশে এটি সবচেয়ে পরিচিত এবং সহজ প্রাপ্য ডাল। এতে প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন, প্রয়োজনীয় অ্যামিনো অ্যাসিড, পটাশিয়াম, আয়রন, ফাইবার এবং ভিটামিন বি ওয়ান রয়েছে। এটি কোলেস্টেরল কমায়। সেই সঙ্গে রক্তে শর্করার পরিমাণ নিয়ন্ত্রণ করে। শরীরে শক্তি বাড়াতেও এই ডালের জুড়ি নেই। মুগ ডাল : এই ডালে প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট রয়েছে যা বিভিন্ন ধরনের দীর্ঘমেয়াদি রোগ সারাতে কাজ করে। এটি শরীরে খারাপ কোলেস্টেরলের মাত্রা কমায়। ফলে হৃদরোগের ঝুঁকি কমে। এছাড়া এতে থাকা পটাশিয়াম, ম্যাগনেশিয়াম এবং ফাইবার উচ্চ রক্তচাপ...

আজ বিশ্ব ডায়াবেটিস দিবস ।। নগরায়ণ, জীবনযাপন ও খাদ্যাভ্যাসে ঝুঁকি বাড়ছে

November 14, 2018

বাহাদুর ডেস্ক নগরায়ণ, পরিবর্তিত জীবনযাপন ও খাদ্যাভ্যাসের কারণে প্রতিটি পরিবারেই ডায়াবেটিসের ঝুঁকি বাড়ছে। আর যেসব পরিবারে ডায়াবেটিস আছে তাদের মধ্যে ডায়াবেটিস ব্যবস্থাপনা নিয়ে উদ্বেগ রয়েছে। এ ছাড়া ডায়াবেটিসে আক্রান্ত গর্ভকালীন নারীর সংখ্যাও বৃদ্ধি পাচ্ছে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, বাংলাদেশসহ পৃথিবীতে এমন কোনো পরিবার নেই, যেখানে অন্তত একজন ডায়াবেটিস রোগী অথবা ডায়াবেটিসের ঝুঁকি নেই। এক গবেষণায় দেখা যায়, বাংলাদেশে শহরের সঙ্গে তাল মিলিয়ে গ্রামেও বাড়ছে ডায়াবেটিস রোগীর সংখ্যা। বর্তমানে শহরে ১০ ভাগ মানুষ এ রোগে আক্রান্ত। অন্যদিকে গ্রামে আক্রান্তের সংখ্যা আট ভাগ। আরো ১০ শতাংশ লোক ডায়াবেটিস হওয়ার অপেক্ষায় রয়েছে। এদিকে, এমন পরিস্থিতে বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো বাংলাদেশেও সরকারি-বেসরকারিভাবে নানা কর্মসূচির মধ্য দিয়ে আজ বিশ্ব ডায়াবেটিস দিবসটি পালন করা...

অভাব-অনটনের কষাঘাত গৌরীপুর জংশনে নরসুন্দর কালামের জীবন সংগ্রাম

November 08, 2018

রাকিবুল ইসলাম রাকিব : বড়সড় আমগাছটার বুকে দুটো পেরেক গাঁথা। পেরেকে সুতো বেঁধে টানানো হয়েছে ভাঙা আয়না। তার বিপরীতে পাতা পুরানো একটি কাঠের চেয়ারে বসে এক ব্যাক্তি তাকিয়ে আছেন আয়নায়। আর মাঝ বয়সী এক যুবক হাতে চিরুনী ও কেচি নিয়ে সেই ব্যাক্তির চুল কেটে যাচ্ছেন একমনে। এক সময়কার গ্রাম-গঞ্জের সাধারণ চিত্র ছিলো এটি। কিন্তু আধুনিক যুগের সেলুন/ জেন্টস পার্লারের দাপটে খোলা আকাশের নিচে নরসুন্দরদের ক্ষৌরকর্মের এই দৃশ্য এখন অনেকটাই বিরল। তবে ময়মনসিংহের গৌরীপুর রেলওয়ে জংশনে গত রোববার দুপুরে এমন এক দৃশ্য ধরা পড়লো। কাছে গিয়ে কথা হয় নরসুন্দরের সাথে। এ প্রতিনিধিকে সে জানায় তার নাম মোঃ কালাম (৩৫)। বাড়ি রেলওয়ে স্টেশন সংলগ্ন চকপাড়া মহল্লায়। বাবার নাম আব্দুল হাকিম। মায়ের নাম ফাতেমা খাতুন। তিন ভাই তিন বোনের মধ্যে সে সবার বড়। অভাব-অনটনের কারণে তিন বেলা পেটে ভাত জুটতো না। তাই...

রোববারের জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষা পিছিয়েছে

November 03, 2018

বাহাদুর ডেস্ক রোববারের জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) ও জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট (জেডিসি) পরীক্ষা পিছিয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করে ঢাকা বোর্ডের চেয়ারম্যান মু. জিয়াউল হক  বলেন,‌ অনিবার্য কারণবশত রোববারের পরীক্ষা স্থগিত করা হয়েছে। রোববার যে পরীক্ষাগুলো ছিল, সেগুলো আগামী শুক্রবার অনুষ্ঠিত হবে। অনিবার্য কারণবশত রোববারের পরীক্ষা স্থগিত করা হয়েছে। রোববার যে পরীক্ষাগুলো ছিল, সেগুলো আগামী শুক্রবার সকাল ৯টায় অনুষ্ঠিত হবে। রোববার জেএসসি পরীক্ষার্থীদের ইংরেজি ও জেডিসি পরীক্ষার্থীদের আরবি দ্বিতীয়পত্রের পরীক্ষা হওয়ার কথা ছিল। এর আগে গত বৃহস্পতিবার দেশজুড়ে জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষা  শুরু হয়েছে। নবমবারের মতো এবার অনুষ্ঠিত হচ্ছে এই পরীক্ষা। ২০১০ সাল থেকে জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষা নেওয়া শুরু হয়। শিক্ষা বোর্ডের তথ্যানুযায়ী, এ বছর জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষার্থীর...

পঙ্গুত্বও হার মানাতে পারেনি সবুজ মিয়াকে

October 07, 2018

রফিক বিশ্বাস, তারাকান্দা (ময়মনসিংহ) থেকে: ২৭ বছরের টগবগে যুবক সবুজ মিয়া। দুই বোন ও এক ভাইয়ের মাঝে তিনি বড়। স্ত্রী পারভীন আক্তার(২৫), পুত্র পাবেল (৪) দাদী আমিনা খাতুন(৮৫), বোন আঁখি আক্তার, বাবা আমজদ আলী ও মাতা সনজিনা খাতুনকে নিয়ে সুখের সংসার। তাহার পিতার বসত বাড়িসহ ৪৮ শতাংশ ভূমি রয়েছে। সুখ,শান্তি,উল্লাসের মাঝে চলছিল সুখের সংসার। বিগত এক বছর আগে নারিকেল গাছ থেকে পড়ে বৃদ্ধ পিতা মাতার সংসারে হাল ধরা টগবগে যুবক সবুজ মিয়ার মেরুদন্ড ভেঙ্গে যায়। দীর্ঘ এক বৎসর ময়মনসিংহ ও ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসার পর ঋণগ্রস্থ হয়ে পড়ে সবুজ মিয়ার পরিবার। কিন্তু হাল ছাড়েননি সবুজ মিয়া। নিজে হাটাঁচড়া ও দাঁড়াতে না পারলেও পঙ্গুত্ব নিয়ে বসে থাকেননি টগবগে যুবক সবুজ। ৭ সদস্যর পরিবারের সহোযোগিতা করার উদ্দেশ্যে ১৩ হাজার টাকা খরচ করে ৩ চাকার হুইল রিকশা তৈরি করে। নিজে হাত দিয়ে চালিয়ে...